১০ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ ২৬শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ২০শে রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি



আউশের বাম্পার ফলনে কৃষকের মুখে হাসি

কুশিয়ারা ভিউ ডেস্ক
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ২৮ আগস্ট, ২০২১

আগে রোপা আউশ ধানের ফলন খুব একটা হতো না। কিন্তু বর্তমানে আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় ও উন্নত জাতের আউশ ধান চাষ করায় নাটোরের লালপুরে রোপা আউশ ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে।

খরচ কম ও স্বল্প সময়ে পাকা ধান ঘরে তুলতে পারায় চলতি মৌসুমে রেকর্ড পরিমাণ জমিতে রোপা আউশ ধান চাষ করেছে এই অঞ্চলের কৃষক। বিঘাপ্রতি ১৪-১৫ মণ হারে ধানের ফলন হওয়ায় হাসি ফুটেছে এই অঞ্চলের ধান চাষিদের মুখে।

উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে, চলতি মৌসুমে উপজেলায় ৩৯০ হেক্টর জমিতে রোপা আউশ চাষের লক্ষমাত্রা থাকলেও চাষ হয়েছে ৪১০ হেক্টর জমিতে। এসব জমি থেকে হেক্টরপ্রতি ২.৮ মেট্রিক টন ফলন হিসাবে এক হাজার ৮৪৫ মেট্রিক টন ধান ও এক হাজার ২৩০ মেট্রিক টন চাল উৎপাদনের লক্ষমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। প্রায় জমিতেই দেশি জাতের পরিবর্তে উফশি ও হাইব্রিড জাতের উচ্চফলনশীল ব্রিধান-৪৮, ৮২ ও ৫০ চাষ হয়েছে।

উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, মাঠে মাঠে দুলছে সোনালি রঙের পাকা ধান। কাক ডাকা ভোর থেকে কৃষকরা মাঠে পাকা ধান কাটছে, কেউ বা মাড়াই করছে। কৃষক পরিবারের সদস্যরা মাড়াই করা ধান ঘরে তুলছে। সব মিলিয়ে এই অঞ্চলের কৃষক পরিবারগুলো এখন দারুণ ব্যস্ত সময় পার করছে।

লালপুর উপজেলা কৃষি অফিসার রফিকুল ইসলাম বলেন, ‘লালপুরে আগে তেমন রোপা আউশ ধানের চাষ হতো না, এবার কৃষি অফিসের মাধ্যমে মাঠপর্যায়ে কৃষকদের উদ্বুদ্ধ করায় রেকর্ড পরিমাণ জমিতে রোপা আউশের চাষ হয়েছে।

আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় রোপা আউশের বাম্পার ফলন হয়েছে। আগামীতে এই ধানচাষ আরও বৃদ্ধি পাবে বলে জানান এই কর্মকর্তা।






এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ





















© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
themesbazar_brekingnews1*5k