২০শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ ৩রা ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ ১২ই রজব, ১৪৪৪ হিজরি



জ্বালানি তেলের আগুনে পুড়ছে কাঁচাবাজার

কুশিয়ারা ভিউ ডেস্ক
  • প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ৯ আগস্ট, ২০২২
সংগৃহীত ছবি


পরিবহন খরচ বাড়ায় সবজির দাম বেড়েছে


 

জ্বালানি তেলের দামবৃদ্ধির ব্যাপক প্রভাব পড়েছে রাজধানীর কাঁচাবাজারে। মাত্র একদিনের ব্যবধানে বাজারে প্রতিটি পণ্যের দাম কেজিতে ৫ টাকা থেকে ২০ টাকা করে বেড়েছে।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, তেলের দাম বাড়ায় পরিবহন খরচ বেড়েছে। যার সরাসরি প্রভাব পড়েছে বাজারে। গতকাল সোমবার বিভিন্ন বাজার ঘুরে দেখা গেছে, সবজির মধ্যে সবচেয়ে কম দামে বিক্রি হচ্ছে পেঁপে। পাঁচ টাকা বেড়ে বাজারে এক কেজি পেঁপের দাম ৩০ টাকা। ৩৫ টাকা কেজির পটল ও ঢেঁড়স বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকায়। অর্থাৎ ১৫ টাকা বেড়েছে। ৪৫ টাকার শসা বিক্রি হচ্ছে ৫৫-৬০ টাকা কেজিতে। ৫০ টাকা কেজিতে বিক্রি হওয়া চিচিঙ্গা, ধুন্দল, কাঁকরোল ও কচুর মুখি আজ বিক্রি হচ্ছে ৬০ টাকায়। একই দামে বিক্রি হচ্ছে বরবটি। ৬০-৭০ টাকার উস্তা করলা, বেগুন বিক্রি হচ্ছে ৮০ টাকায়।

বাজারে নতুন আসা আগাম শীতকালীন সবজি শিম ২০০ থেকে ২৪০ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে। এছাড়াও টমেটো ১২০ টাকা ও প্রতিকেজি গাজরের দাম ১৪০ টাকা। বাড়তি দামের ভিড়েও রয়েছে সুখবর। কমতে শুরু
করেছে কাঁচা মরিচের দাম। ২৮০ টাকা থেকে ৪০ টাকা কমে বিক্রি হচ্ছে ২৪০ টাকায়।

অন্যদিকে লাউ ৫০. টাকা, বাঁধাকপি ৪০ টাকা ও চাল কুমড়া ৪০ টাকা পিস হিসেবে এবং মিষ্টি কুমড়ার ফালি ৩০ টাকা, কাঁচা কলা ৩০ টাকা ও লেবু ১৫-২০ টাকা হালিতে বিক্রি হচ্ছে। শাকের দামও ৫ থেকে ১০ টাকা বেড়েছে। ১০ টাকা আটির নাম ও পালং শাক বিক্রি হচ্ছে ১৫ টাকায়। আর ৩০ টাকার লাউ শাক বিক্রি হচ্ছে ৪০ টাকায়।

মোহাম্মদপুর কাঁচাবাজারের ব্যবসায়ী হাবিব খান বলেন, ২০ টাকা কেজির ঢেঁড়স কিনেছি ৩৫ টাকা করে। বিক্রি করছি ৫০ টাকায়। খরচ বেশি হওয়ায় দাম কিছুটা বেশি।

ব্যবসায়ী আশিকুর রহমান বলেন, আজ কারওয়ান বাজারে পণ্য কিনতে গিয়ে আমি অবাক। সবকিছুর দাম ৫ থেকে ১০ টাকা বেশি। দাম বেশি থাকায় এক পাল্লা দুই পাল্লা করে মাল এনেছি। কারণ, দাম বেশি হলে বিক্রি কম হয়।

শরীফ গাজী নামে এক ক্রেতা বলেন, সবজির দামে আগুন। সব কিছুর দাম বেড়েছে। ৫০০ টাকার সবজি কিনলাম ব্যাগেরও দরকার হলো না।

কারওয়ান বাজারের ব্যবসায়ী শাহিনুল করিম বলেন, আমার এখানে বগুড়া থেকে ট্রাকে সবজি আসে। ট্রাকে নতুন করে খরচ বেড়েছে ৩ হাজার ৬০ টাকা। পরিবহন খরচের কারণে পণ্যের দাম বেড়েছে।

উত্তর অঞ্চলের ট্রাকচালক আশিকুল ইসলাম বলেন, সাড়ে তিনটন ক্ষমতার একটি ট্রাক ঢাকায় আসা-যাওয়া করতে খরচ হয় ৯০ লিটার তেল। যার বাজার মূল্য ১০ হাজার ২৬০ টাকা। আগের তুলনায় ৩ হাজার বেশি। আর বাড়তি ভাড়ার প্রভাবই পড়েছে কাঁচা বাজারে।





এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ









All Bangla Newspapers






















© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২৩ কপিরাইট © কুশিয়ারাভিউ টোয়েন্টিফোর ডটকম
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
themesbazar_brekingnews1*5k