২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ ৬ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ২রা জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি



ভয়াল ২১ আগস্ট

কুশিয়ারা ভিউ ডেস্ক
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ২১ আগস্ট, ২০২১

আজ ২১ আগস্ট। দেশের ইতিহাসে ভয়াবহ কলঙ্কময় দিন। ১৭ বছর আগে ২০০৪ সালের এই দিনে (২১ আগস্ট) বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে দলটির সমাবেশে বর্বরোচিত গ্রেনেড হামলা হয়। 

হামলার প্রধান টার্গেট বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বেঁচে গেলেও সেই নারকীয় হামলা কেড়ে নেয় ২৪ তাজা প্রাণ। আহত হন আওয়ামী লীগের কয়েকশ নেতাকর্মী।

বিএনপি জামায়াত জোট সরকারের সময় সারা দেশে ছড়িয়ে পরা সন্ত্রাস আর জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে চলছিল আওয়ামী লীগের এই প্রতিবাদী সমাবেশ।

২১ আগস্ট, ২০০৪ সাল। ঘড়ির কাটায় তখন বিকেল ৫টা ২২ মিনিট। নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য রাখছিলেন তখনকার বিরোধীদলীয় নেত্রী, আজকের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

আওয়ামী লীগ সভাপতির বক্তব্য চলার সময়েই শুরু হয় মুহুর্মুহু গ্রেনেড চার্জ। কিছু বুঝে ওঠার আগেই একে একে বিষ্ফোরিত হয় ১৩টি গ্রেনেড। মুহুর্তেই রক্তাক্ত পুরো এলাকা। স্পিল্টারের আঘাতে রক্ত মাংসের স্তুপে পরিণত বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউ।

চারদিক থেকে ভেসে আসে শত শত মানুষের বাঁচার আকুতি-আর্ত চিৎকার।
ভাগ্যক্রমে নারকীয় সেই গ্রেনেড হামলায় অলৌকিকভাবে বেঁচে যান ঘাতকদের প্রধান টার্গেট বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা। ব্যাক্তিগত দেহরক্ষীসহ নেতাকর্মীদের মানব ঢাল নিশ্চিত মৃত্যু থেকে রক্ষা করে বর্তমান প্রধানমন্ত্রীকে।

সেদিন শুধু গ্রেনেড হামলা করেই থেমে থাকেনি ঘাতকের দল। গুলি চালায় শেখ হাসিনাকে লক্ষ্য করে। তবে সে বুলেট ভেদ করতে পারেনি তাঁকে বহন করা গাড়ির কাঁচ।

ঘাতকদের নৃশংস এমন হামলা থেকে শেখ হাসিনা প্রাণে বাঁচলেও, আওয়ামী লীগ নেত্রী আইভি রহমানসহ ২৪ জন নিহত হন হামলায়। পাশাপাশি আহত হয় দলের  শতাধিক নেতাকর্মী।

 






এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ





















© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
themesbazar_brekingnews1*5k