২রা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ ১৮ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১২ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি



রাঙামাটিতে সন্ত্রাসীদের ব্রাশফায়ারে নিহত ১

কুশিয়ারা ভিউ ডেস্ক
  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১

রাঙামাটির বাঘাইছড়িতে সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের আক্রমণে সুরেশ কান্তি চাকমা ওরফে দীনেশ (৫৭) নামে একজন নিহত হয়েছেন।

আজ শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) সকালে বাঘাইছড়ি উপজেলার বঙ্গলতলী ইউনিয়নের জারুলছড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত সুরেশ পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির গরুপের পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সক্রিয় সদস্য বলে জানা গেছে। এ ঘটনার পর থেকে ওই এলাকায় চাপা আতঙ্ক বিরাজ করছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলার বঙ্গলতলী ইউনিয়নের জারুলছড়ি এলাকায় খুব ভোরবেলা সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের একটি গ্রুপ হানা দেয়। এসময় পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির গ্রুপের সমর্থিত পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সক্রিয় সদস্য সুরেশ কান্তি চাকমা ওরফে দীনেশ নিজ ঘরে ঘুমিয়ে ছিলেন। এর আগে সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা তার বাড়ি ঘেরাও করে। তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে সুরেশ ঘরের খাটের নিচে লুকিয়ে তাকে।

পরে ঘরের দরজা ভেঙে সন্ত্রাসীরা সুরেশ চাকমাকে ব্রাশফায়ার করে পালিয়ে যায়। সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের গুলিতে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় তার।
রাঙামাটি বাঘাইছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আনোয়ার হোসেন খান জানান, সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের ব্রাশফায়ারে নিহত সুরেশ চাকমার লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ খাগড়াছড়ি জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ময়নাতদন্তের পর তার পরিবারের কাছে লাশ হস্তান্তর করা হবে। মামলা কার্যক্রম চলছে।

এ ঘটনার জন্য এমএন লারমা ওরফে সষ্কারপন্তির সশস্ত্র গরুপকে দায়ি করেছে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির নেতা ত্রিদিপ চাকমা। তবে হত্যাকান্ডের ঘটনার দায় নিতে নারাজ এমএন লারমা (সংস্কারপন্তি) দলের বাঘাইছড়ি উপজেলা সভাপতি জ্ঞানজীব চাকমা। তিনি বলেন, বাঘাইছড়ির বঙ্গতলীতে আমাদের দলের কোন লোক নেই।

জেএসএস এর অভ্যন্তরীণ কোন্দলের কারণে এ ঘটনাটি সংঘটিত হয়েছে।






এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ





















© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD
themesbazar_brekingnews1*5k